আত্মীয়স্বজনের প্রতি কর্তব্য রক্ষায় ইসলামের আদেশ

Spread the love

আত্মার সাথে সম্পর্কিত ব্যক্তিকে আত্মীয় বলে।ইসলামের দৃষ্টিতে পিতামাতা ও সন্তানের পর এয়ার ক্ষেত্রে যারা অগ্রগণ্য তারাই আত্মীয়।বর্তমানে করোনা ভাইরাসের কারনে সবাই নিজ ঘরে অবস্থান করছে।এমন পরিস্থিতিতেও আত্মীয়স্বজনের খোঁজ খবর নিতে হবে এবং তাদের হক আদায় করতে হবে।

আত্মীয়দের মধ্যে গরিব-ধনী সকলের সাথে সৌজন্যমূলক সম্পর্ক বজায় রাখতে হবে। গরিব ও অভাবগ্রস্ত আত্মীয়দের প্রয়ােজনীয় সাহায্য করতে হবে।

আরও পড়ুন >>  ১০০/- টাকার প্রাইজবন্ড ড্র ।। Prize Bonds Result

এ সম্পর্কে আল্লাহ তা’লা বলেছেন-
“আল্লাহর ভালােবাসা লাভের জন্য নিকট আত্মীয়দের দান করো।” (সূরা আল-বাকারা, আয়াত : ১৭৭)

আত্মীয়দের কোনােরূপ কষ্ট দেওয়া যাবে না। আত্মীয়দের সাথে কোনােরূপ সম্পর্ক ছিন্ন করা যাবে না।
এ মর্মে রাসুল (স) বলেছেন-
‘’ যে সম্প্রদায়ের মধ্যে আত্মীয়তার সম্পর্ক ছিন্নকারী লােক থাকে সে সম্প্রদায়ের প্রতি আল্লাহর রহমত বর্ষিত হয় না’’।(বায়হাকি)

স্বয়ং আল্লাহ তায়ালা নির্দেশ দিয়েছেন- আতীয়রা রােগাক্রান্ত হলে তাদের সেবাযত্ন করতে হবে। বিপদে-আপদে খোঁজখবর নিতে হবে এবং আত্মীয়দের সাথে সদ্ব্যবহার করতে হবে।

আল্লাহ তা’লা বলেন-
“পিতামাতার সাথে সদ্ব্যবহার করবে এবং নিকট আত্মীয়দের সাথেও উত্তম আচরণ প্রদর্শন করবে।” (সূরা আন-নিসা, আয়াত : ৩৬)

তিনি আরও বলেন-
“নিশ্চয়ই মহান আল্লাহ ন্যায়বিচার কায়েম করতে, পরস্পরের প্রতি ইহসান বা উপকার করতে ও আয়স্বজনের অধিকার আদায় করতে নির্দেশ দিচ্ছেন।” (সূরা আন-নাহল, আয়াত: ৯০)

বর্তমানে পুরো বিশ্বের মানুষ খুব কঠিন সময় পার করছে।এমতঅবস্থায় আমাদের সকলের উচিত আমাদের আত্মীয়স্বজনের খোঁজ খবর নেয়া এবং তাদের বিপদে পাশে দাঁড়ানো যা ইসলাম আমাদের শিখিয়েছে।

আরও পড়ুন >> সূরা ইখলাস ও সূরা কাহাফ পাঠের ফজিলতসমুহ

Check Also

হাদীসে বর্ণিত

হাদীসে বর্ণিত বিশেষ কয়েকটি মুনাজাত ও তার গুরুত্ব

Spread the loveহাদীসে বর্ণিত মুনাজাত সমুহ আলোচনা করার আগে আপনাদের আল্লাহ তার রাসুলের প্রতি বিশ্বাস …

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *